নাভালনির স্বাস্থ্য বিষয়ে ইইউ’র পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠক

ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্যভুক্ত দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা রাশিয়ার বিরোধী দলীয় নেতা আলেক্সি নাভালনির স্বাস্থ্য বিষয়ে সোমবার ভার্চুয়াল বৈঠকে বসতে যাচ্ছেন। খবর এএফপি’র।

এ দিকে যুক্তরাষ্ট্র হুঁশিয়ার করে বলেছে, কারাগারে এ ক্রেমলিন সমালোচকের মৃত্যু হলে মস্কোকে এর ‘পরিণতি’ ভোগ করতে হবে। তা ছাড়া ইউক্রেন সীমান্তে রাশিয়ার সামরিক শক্তি বৃদ্ধি প্রশ্নে দেশটির সঙ্গে উত্তেজনা ক্রমেই বৃদ্ধি পাচ্ছে।

এ সপ্তাহান্তে চিকিৎসকেরা সতর্ক করে বলেছেন যে মস্কোর একটি কারাগারে বর্তমানে অনশন ধর্মঘটে থাকা নাভালনি ‘যেকোনো সময়’ মারা যেতে পারেন। এদিকে প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দেওয়ার মাত্র কয়েক ঘণ্টা পর নাভালনির সমর্থকেরা আগামী বুধবার সন্ধ্যায় ব্যাপক বিক্ষোভের ডাক দিয়েছেন।

নাভালনির আস্থা রয়েছে এমন চিকিৎসকদের দ্রুত দেখার সুযোগ দেওয়ার আহ্বান জানিয়ে এক বিবৃতিতে ইইউ’র বৈদেশিক নীতিবিষয়ক প্রধান জোসেফ বোরেল বলেন, ইউরোপীয় ইউনিয়নের শীর্ষ কূটনীতিকরা সোমবার নাভালনির শারীরিক অবস্থা নিয়ে আলোচনা করবেন।

ইউক্রেন সীমান্তে রাশিয়ার সামরিক শক্তি বৃদ্ধি, মার্কিন নির্বাচনে হস্তক্ষেপ এবং অনুমেয় অন্যান্য শত্রুতামূলক কর্মকাণ্ডসহ আরও অনেক বিষয়ে মস্কো ও পশ্চিমা দেশের মধ্যে উত্তেজনা বৃদ্ধির মধ্যে নাভালনির স্বাস্থ্য বিষয়ক উদ্বেগের বিষয়টি উঠে আসলো।

রবিবার মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জ্যাক সুলিভান ক্রেমলিনকে হুঁশিয়ার করে দিয়ে বলেন, “নাভালনি মারা গেলে দেশটিকে এর পরিণতি ভোগ করতে হবে।”

নাভালনির ভাষ্য অনুযায়ী, মস্কো বিষাক্ত নার্ভ এজেন্ট প্রয়োগ করায় মৃত্যুর একেবারে কাছ থেকে ফিরে আসার পর গত জানুয়ারিতে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে বিচারে আর্থিক দুর্নীতির দায়ে আড়াই বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। তিনি ব্যাক পেইন এবং হাত-পা অবশের চিকিৎসার দাবিতে ৩১ মার্চ অনশন ধর্মঘট শুরু করেন এবং শারীরিকভাবে অনেক দুর্বল হয়ে পড়েন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here