করোনা: ব্রাজিলে একদিনে রেকর্ড ৪১৯৫ মৃত্যু

প্রথমবারের মতো ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড ৪ হাজার ১৯৫ মৃত্যু দেখলো ব্রাজিল। একইসঙ্গে করোনাভাইরাসের সংক্রমণের হার বাড়ছে খুবই দ্রুত।

বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানায়, দেশটির হাসপাতালগুলোতে এখন ঠাঁই নেই অবস্থা। কিছু শহরে চিকিৎসার জন্য অপেক্ষায় থেকে রোগী মারা যাচ্ছেন এবং অনেক জায়গায় স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে।

ইতিমধ্যে ল্যাটিন আমেরিকার দেশটিতে ৩ লাখ ৩৭ হাজার মানুষ মারা গেছে, পরিসংখ্যানে যুক্তরাষ্ট্রের পরেই তাদের অবস্থান।

কিন্তু ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জাইর বলসোনারো ক্রমাগতই লকডাউনের বিরোধিতা করে যাচ্ছেন। তার যুক্তি, অর্থনৈতিকভাবে দেশ আক্রান্ত হলে এর প্রভাব ভাইরাসের চেয়ে বেশি খারাপ হবে। এমনকি স্থানীয় কিছু কর্তৃপক্ষের জারি করা নিষেধাজ্ঞা তুলে দেওয়ার চেষ্টা করছেন তিনি।

মঙ্গলবার বাসভবনের বাইরে সমর্থকদের উদ্দেশে বক্তৃতাকালে বলসোনারো কোয়ারেন্টাইনের সমালোচনা করেন। তার মতে, নিভৃতবাসের সঙ্গে স্থুলতা ও বিষণ্নতার সংযোগ আছে, যা বেকারত্বের দিকে নিয়ে যায়।

তবে সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ৪ হাজার ১৯৫ জনের মৃত্যু নিয়ে কোনো মন্তব্য করেননি বলসোনারো।

ব্রাজিলের ১ কোটি ৩০ লাখের বেশি মানুষের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, শুধু মার্চেই ৬৬ হাজার ৫৭০ জন মানুষ মারা গেছে, যা আগের মাসিক রেকর্ডের চেয়ে দ্বিগুণের বেশি।

এ দিকে দেশটিতে করোনাভাইরাসের ৯২টি ধরন চিহ্নিত হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে পি.ওয়ান বা ব্রাজিল ভ্যারিয়্যান্ট, যা মূল স্ট্রেইনের চেয়ে আরও বেশি সংক্রামক। ধারণা করা হচ্ছে, ২০২০ সালে নভেম্বরে আমাজনের এর উৎপত্তি। এর পর দ্রুতই প্রদেশের রাজধানী মানাউশে ছড়িয়ে পড়ে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here